ঢাকা ০৩:৩০ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সিলেটে মেয়র পদের লড়াইয়ে ১১ জন, কাউন্সিলর পদে ৩৭৬

মো.মুহিবুর রহমান, সিলেট
  • Update Time : ০৪:২৫:০২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ মে ২০২৩
  • / ৯১ Time View

সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনের মনোনয়পত্র দাখিলের সময়সীমা শেষ হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৩ মে) শেষ দিনে উৎসবমুখর পরিবেশে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন প্রার্থীরা। নির্বাচনে মেয়র পদে ১১ জন ও কাউন্সিলর পদে ৩৭৬ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

এর আগে গত ২৭ এপ্রিল থেকে সিলেট আঞ্চলিক নির্বাচন কার্যালয়ের রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছ থেকে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ শুরু করেন সম্ভাব্য প্রার্থীরা। ২৭ দিনে মেয়র পদে মোট ১১ ও কাউন্সিলর পদে ৪৫৬ জন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। তবে ৮০ জন ফরম দাখিল করেননি।

সিলেট আঞ্চলিক নির্বাচন কার্যালয়ের মিডিয়া সেল (সিটি নির্বাচন) কর্মকর্তা সৈয়দ কামাল হোসেন জানান, মেয়র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিল করেছেন ১১ জন। এর মধ্যে দলীয় প্রতীকের প্রাথী ৪ জন।

তারা হলেন- মো. আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী (নৌকা), নজরুল ইসলাম বাবুল (লাঙ্গল), হাফিজ মাওলানা মাহমুদুুল হাসান (হাতপাখা) ও মো. জহিরুল আলম (জাকের পার্টি)।

এর মধ্যে নৌকার প্রার্থী মঙ্গলবার মনোনয়ন দাখিল করেন। আর জাপা মনোনীত প্রার্থী নজরুল ইসলাম বাবুল দাখিল করেন সোমবার।

মনোনয়ন দাখিল করা স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থীরা হলেন- মোহাম্মদ আবদুল হানিফ কুটু, মোহাম্মদ আব্দুল মান্নান খান, সামছুন নুর তালুকদার, মো. ছালাহ উদ্দিন রিমন, মাওলানা জাহিদ উদ্দিন চৌধুরী, মো. শাহজাহান মিয়া ও মোশতাক আহমেদ রউফ মোস্তফা।

সৈয়দ কামাল হোসেন আরও জানান, সংরক্ষিত ১৪ ওয়ার্ডগুলোর (মহিলা কাউন্সিলর) মধ্যে ১নং ওয়ার্ডে ফরম জমা দিয়েছেন ২ জন, ২নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ২ জন, ৭ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৯ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ১৩ জন ও ১৪নং ওয়ার্ডে ৬ জন। এর আগে মনোনয়ন ফরম কিনেছিলেন ১নং ওয়ার্ডে ২ জন, ২নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ৭ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৯ নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ১৪ জন ও ১৪নং ওয়ার্ডে ৬ জন।

অপরদিকে, সাধারণ ওয়ার্ডগুলোর (পুরুষ কাউন্সিলর) মধ্যে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন ১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২ নং ওয়ার্ডে ২ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৭নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৯নং ওয়ার্ডে ২ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ২ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ১৪নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ১৫নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১৬ নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৭নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ১৮নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৯ নং ওয়ার্ডে ২ জন, ২০ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২২নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ২৩নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৪নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ২৫নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৬ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২৭নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ২৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৯নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩০নং ওয়ার্ডে ১৯ জন, ৩১নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ৩২নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩৩নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩৪নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩৫নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ৩৬নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৩৭নং ওয়ার্ডে ১৩ জন, ৩৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৩৯নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৪০নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ৪১নং ওয়ার্ডে ১১ জন এবং ৪২নং ওয়ার্ডে ১০ জন। এসব ওয়ার্ডারে মধ্যে মনোনয়ন কিনেছিলেন- ১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ৭নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ১১ জন, ৯নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ১৪নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ১৫নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৬ নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৭নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ১৮নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ১৯ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২০ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২১নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২২নং ওয়ার্ডে ১২ জন, ২৩নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৪নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৫নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ২৬ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৭নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৯নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩০নং ওয়ার্ডে ২০ জন, ৩১নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩২নং ওয়ার্ডে ১২ জন, ৩৩নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩৪নং ওয়ার্ডে ১৯ জন, ৩৫নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৩৬নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৩৭নং ওয়ার্ডে ১৫ জন, ৩৮নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩৯নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৪০নং ওয়ার্ডে ১১ জন, ৪১নং ওয়ার্ডে ১৫ জন এবং ৪২নং ওয়ার্ডে ১৩ জন।

উল্লেখ্য, আগামী ২১ জুন সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচন ইভিএমে হবে। মনোনয়নপত্র বাছাই হবে ২৫ মে, প্রত্যাহারের শেষ সময় ১ জুন।

 

Please Share This Post in Your Social Media

সিলেটে মেয়র পদের লড়াইয়ে ১১ জন, কাউন্সিলর পদে ৩৭৬

Update Time : ০৪:২৫:০২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ মে ২০২৩

সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনের মনোনয়পত্র দাখিলের সময়সীমা শেষ হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৩ মে) শেষ দিনে উৎসবমুখর পরিবেশে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন প্রার্থীরা। নির্বাচনে মেয়র পদে ১১ জন ও কাউন্সিলর পদে ৩৭৬ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

এর আগে গত ২৭ এপ্রিল থেকে সিলেট আঞ্চলিক নির্বাচন কার্যালয়ের রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছ থেকে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ শুরু করেন সম্ভাব্য প্রার্থীরা। ২৭ দিনে মেয়র পদে মোট ১১ ও কাউন্সিলর পদে ৪৫৬ জন মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। তবে ৮০ জন ফরম দাখিল করেননি।

সিলেট আঞ্চলিক নির্বাচন কার্যালয়ের মিডিয়া সেল (সিটি নির্বাচন) কর্মকর্তা সৈয়দ কামাল হোসেন জানান, মেয়র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিল করেছেন ১১ জন। এর মধ্যে দলীয় প্রতীকের প্রাথী ৪ জন।

তারা হলেন- মো. আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী (নৌকা), নজরুল ইসলাম বাবুল (লাঙ্গল), হাফিজ মাওলানা মাহমুদুুল হাসান (হাতপাখা) ও মো. জহিরুল আলম (জাকের পার্টি)।

এর মধ্যে নৌকার প্রার্থী মঙ্গলবার মনোনয়ন দাখিল করেন। আর জাপা মনোনীত প্রার্থী নজরুল ইসলাম বাবুল দাখিল করেন সোমবার।

মনোনয়ন দাখিল করা স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থীরা হলেন- মোহাম্মদ আবদুল হানিফ কুটু, মোহাম্মদ আব্দুল মান্নান খান, সামছুন নুর তালুকদার, মো. ছালাহ উদ্দিন রিমন, মাওলানা জাহিদ উদ্দিন চৌধুরী, মো. শাহজাহান মিয়া ও মোশতাক আহমেদ রউফ মোস্তফা।

সৈয়দ কামাল হোসেন আরও জানান, সংরক্ষিত ১৪ ওয়ার্ডগুলোর (মহিলা কাউন্সিলর) মধ্যে ১নং ওয়ার্ডে ফরম জমা দিয়েছেন ২ জন, ২নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ২ জন, ৭ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৯ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ১৩ জন ও ১৪নং ওয়ার্ডে ৬ জন। এর আগে মনোনয়ন ফরম কিনেছিলেন ১নং ওয়ার্ডে ২ জন, ২নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ৭ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৯ নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ১৪ জন ও ১৪নং ওয়ার্ডে ৬ জন।

অপরদিকে, সাধারণ ওয়ার্ডগুলোর (পুরুষ কাউন্সিলর) মধ্যে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন ১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২ নং ওয়ার্ডে ২ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৭নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৯নং ওয়ার্ডে ২ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ২ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ১৪নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ১৫নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১৬ নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৭নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ১৮নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৯ নং ওয়ার্ডে ২ জন, ২০ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২২নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ২৩নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৪নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ২৫নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৬ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২৭নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ২৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৯নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩০নং ওয়ার্ডে ১৯ জন, ৩১নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ৩২নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩৩নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩৪নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩৫নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ৩৬নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৩৭নং ওয়ার্ডে ১৩ জন, ৩৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৩৯নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৪০নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ৪১নং ওয়ার্ডে ১১ জন এবং ৪২নং ওয়ার্ডে ১০ জন। এসব ওয়ার্ডারে মধ্যে মনোনয়ন কিনেছিলেন- ১নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ৩নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৪নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ৫নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ৬নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ৭নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৮নং ওয়ার্ডে ১১ জন, ৯নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ১০নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১১নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১২নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ১৩নং ওয়ার্ডে ৮ জন, ১৪নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ১৫নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৬ নং ওয়ার্ডে ৭ জন, ১৭নং ওয়ার্ডে ৩ জন, ১৮নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ১৯ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২০ নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ২১নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২২নং ওয়ার্ডে ১২ জন, ২৩নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৪নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৫নং ওয়ার্ডে ৬ জন, ২৬ নং ওয়ার্ডে ৫ জন, ২৭নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৮নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ২৯নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩০নং ওয়ার্ডে ২০ জন, ৩১নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩২নং ওয়ার্ডে ১২ জন, ৩৩নং ওয়ার্ডে ১৭ জন, ৩৪নং ওয়ার্ডে ১৯ জন, ৩৫নং ওয়ার্ডে ৪ জন, ৩৬নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৩৭নং ওয়ার্ডে ১৫ জন, ৩৮নং ওয়ার্ডে ১০ জন, ৩৯নং ওয়ার্ডে ৯ জন, ৪০নং ওয়ার্ডে ১১ জন, ৪১নং ওয়ার্ডে ১৫ জন এবং ৪২নং ওয়ার্ডে ১৩ জন।

উল্লেখ্য, আগামী ২১ জুন সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচন ইভিএমে হবে। মনোনয়নপত্র বাছাই হবে ২৫ মে, প্রত্যাহারের শেষ সময় ১ জুন।