ঢাকা ০৫:১৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ

সিলেটের শাবিতে ছাত্রলীগের সংঘর্ষের ঘটনায় বহিষ্কার ৮

মো.মুহিবুর রহমান,সিলেট
  • Update Time : ০৭:৫৫:৩৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ১১ মার্চ ২০২৪
  • / ৩২ Time View

সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনায় ৮ শিক্ষার্থীকে হল থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে।

সোমবার (১১মার্চ) বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মো. কামরুজ্জামান চৌধুরী এ তথ্য জানিয়েছেন।

এ ছাড়া এ ঘটনার তদন্তের জন্য পরিসংখ্যান বিভাগের অধ্যাপক ড.আজিজুল বাতেনকে প্রধান করে ৫ সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটিকে দ্রুত তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করতে বলেছে কর্তৃপক্ষ।

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় হল থেকে সাময়িক বহিষ্কৃত শিক্ষার্থীরা হলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শেখ মুজিবুর রহমান হলের ২০১৯-২০ সেশনের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী মোবাশ্বির বাঙ্গালী, একই হলের সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ২০১৮-১৯ সেশনের শিক্ষার্থী সাদমান হাফিজ, একই বিভাগ ও বর্ষের শিক্ষার্থী রিফাত চৌধুরী রিয়াজ, সমাজবিজ্ঞান বিভাগের ২০২১-২২ সেশনের শিক্ষার্থী শান্ত তারা (আদনান), ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের ২০১৯-২০ সেশনের শিক্ষার্থী মহসিন নাইম, ইংরেজি বিভাগের ২০১৯-২০ সেশনের শিক্ষার্থী তৈমুর সালেহিন (তাউস), পরিসংখ্যান বিভাগের ২০২১-২২ সেশনের শিক্ষার্থী তানভীর আহমেদ ও সমাজকর্ম বিভাগের ২০২০-২১ সেশনের শিক্ষার্থী হৃদয় মিয়া। এর মধ্যে পাঁচজনই বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের সাবেক সহসভাপতি মামুন শাহর সমর্থক।

শান্ত তারা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক পরিবেশবিষয়ক সম্পাদক খলিলুর রহমানের সমর্থক। এ ছাড়া বাকি দুজন রিফাত চৌধুরী ও মহসিন নাইম কার সঙ্গে রাজনীতি করেন, সেটি জানা যায়নি। প্রক্টর বলেন, বহিষ্কারাদেশ থাকাকালে অন্য কোনো হলেও তাঁরা প্রবেশ করতে পারবেন না।

সম্প্রতি ফেসবুক মেসেঞ্জার গ্রুপে বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীদের মধ্যে ‘ব্যাচের নামকরণ’ নিয়ে আলোচনা হলে এ নিয়ে দুই পক্ষের বাগ্বিতণ্ডা হয়। এর জেরে শুক্রবার বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে দুই পক্ষই ক্যাম্পাসে অস্ত্রের মহড়া দেয় বলে জানান শিক্ষার্থীরা।

Please Share This Post in Your Social Media

সিলেটের শাবিতে ছাত্রলীগের সংঘর্ষের ঘটনায় বহিষ্কার ৮

Update Time : ০৭:৫৫:৩৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ১১ মার্চ ২০২৪

সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনায় ৮ শিক্ষার্থীকে হল থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে।

সোমবার (১১মার্চ) বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মো. কামরুজ্জামান চৌধুরী এ তথ্য জানিয়েছেন।

এ ছাড়া এ ঘটনার তদন্তের জন্য পরিসংখ্যান বিভাগের অধ্যাপক ড.আজিজুল বাতেনকে প্রধান করে ৫ সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটিকে দ্রুত তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করতে বলেছে কর্তৃপক্ষ।

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় হল থেকে সাময়িক বহিষ্কৃত শিক্ষার্থীরা হলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শেখ মুজিবুর রহমান হলের ২০১৯-২০ সেশনের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী মোবাশ্বির বাঙ্গালী, একই হলের সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ২০১৮-১৯ সেশনের শিক্ষার্থী সাদমান হাফিজ, একই বিভাগ ও বর্ষের শিক্ষার্থী রিফাত চৌধুরী রিয়াজ, সমাজবিজ্ঞান বিভাগের ২০২১-২২ সেশনের শিক্ষার্থী শান্ত তারা (আদনান), ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের ২০১৯-২০ সেশনের শিক্ষার্থী মহসিন নাইম, ইংরেজি বিভাগের ২০১৯-২০ সেশনের শিক্ষার্থী তৈমুর সালেহিন (তাউস), পরিসংখ্যান বিভাগের ২০২১-২২ সেশনের শিক্ষার্থী তানভীর আহমেদ ও সমাজকর্ম বিভাগের ২০২০-২১ সেশনের শিক্ষার্থী হৃদয় মিয়া। এর মধ্যে পাঁচজনই বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের সাবেক সহসভাপতি মামুন শাহর সমর্থক।

শান্ত তারা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক পরিবেশবিষয়ক সম্পাদক খলিলুর রহমানের সমর্থক। এ ছাড়া বাকি দুজন রিফাত চৌধুরী ও মহসিন নাইম কার সঙ্গে রাজনীতি করেন, সেটি জানা যায়নি। প্রক্টর বলেন, বহিষ্কারাদেশ থাকাকালে অন্য কোনো হলেও তাঁরা প্রবেশ করতে পারবেন না।

সম্প্রতি ফেসবুক মেসেঞ্জার গ্রুপে বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীদের মধ্যে ‘ব্যাচের নামকরণ’ নিয়ে আলোচনা হলে এ নিয়ে দুই পক্ষের বাগ্বিতণ্ডা হয়। এর জেরে শুক্রবার বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে দুই পক্ষই ক্যাম্পাসে অস্ত্রের মহড়া দেয় বলে জানান শিক্ষার্থীরা।