ঢাকা ০৬:৩৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
বিমানবন্দর-টঙ্গী থেকে ধারালো অস্ত্রসহ ৮ ছিনতাইকারী গ্রেপ্তার কিশোরগঞ্জে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে স্কুলের উন্নয়ন খাতের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ সাংবাদিককে ৫ বছরের অভিজ্ঞতা ও গ্র্যাজুয়েট হতে হবে বেনজীরের আরও ১১৩ দলিলের সম্পদ ও গুলশানের ৪টি ফ্ল্যাট জব্দের আদেশ সুজানগরে গৃহবধূকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে কাউকে ছাড় দেব না : ইসি রাশেদা ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে একটি বাড়ি থেকে ১২ কোটি রুপির স্বর্ণ জব্দ সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে বৈধপথে রেমিট্যান্স প্রেরণের আহ্বান প্রবাসী কল্যাণ প্রতিমন্ত্রীর ঝালকাঠিতে রেমালের প্রভাবে নদীর পানি বেড়েছে ২১৭ নেতাকে বহিষ্কার করল বিএনপি

সমবায় সমিতির নামে কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎ

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • Update Time : ১২:০৩:১১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৫ এপ্রিল ২০২৪
  • / ৫১ Time View

সমবায় সমিতির নামে চার শতাধিক গ্রাহকের কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎকারী প্রতারণা চক্রের প্রধান মো. ফখরুল ইসলামকে (৪০) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের এলিট ফোর্স র‍্যাব।

বুধবার (৩ এপ্রিল) দিবাগত রাতে রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব-৩ এর একটি দল।

গ্রেপ্তার ফখরুল ৭টি প্রতারণা মামলায় বিভিন্ন মেয়াদে সাজাপ্রাপ্ত দীর্ঘদিন ধরে পলাতক আসামি।

র‍্যাব-৩ এর স্টাফ অফিসার (মিডিয়া) সহকারী পুলিশ সুপার মো. আজাহার হোসেন জানান, গ্রেপ্তার ফখরুল ২০১১ সালে মেঘনা মাল্টিপারপাস লিমিটেড নামে একটি সমবায় সমিতি প্রতিষ্ঠা করে। ২০১৩ সালে সমবায় সমিতির গ্রাহক সংখ্যা চার শতাধিক ছাড়িয়ে গেলে গ্রেপ্তার আসামি গ্রাহকদের জমা করা কোটি কোটি টাকা নিয়ে লাপাত্তা হয়ে যায়।

পরে তার বিরুদ্ধে অর্থ আদালত আইন এবং সমবায় সমিতি আইনে চেক জালিয়াতিসহ প্রতারণার অভিযোগে মোট ৭টি মামলা দায়ের করা হয়। বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে আদালত গ্রেপ্তার আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড ও অর্থদণ্ড দেন।

সমবায় সমিতি আইনে দায়ের করা ২০১৪ সালের একটি মামলায় চাঁদপুর যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ ১ম আদালত ২০২০ সালে গ্রেপ্তার ফখরুলকে ৭ বছরের কারাদণ্ড এবং ৬ লাখ ৬৬ হাজার ৬৬৬ টাকা অর্থদণ্ড দেন।

এএসপি আজাহার বলেন, গ্রাহকদের টাকা লুট করার পর থেকেই নিজ এলাকা ছেড়ে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় পলাতক জীবনযাপন করে আসছিল। সে নিজের প্রকৃত নাম পরিচয় গোপন করে ছদ্মনাম ব্যবহার করে রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকায় অবস্থানের সময় বুধবার র‍্যাব-৩ তাকে গ্রেপ্তার করে। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media

সমবায় সমিতির নামে কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎ

Update Time : ১২:০৩:১১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৫ এপ্রিল ২০২৪

সমবায় সমিতির নামে চার শতাধিক গ্রাহকের কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎকারী প্রতারণা চক্রের প্রধান মো. ফখরুল ইসলামকে (৪০) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের এলিট ফোর্স র‍্যাব।

বুধবার (৩ এপ্রিল) দিবাগত রাতে রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব-৩ এর একটি দল।

গ্রেপ্তার ফখরুল ৭টি প্রতারণা মামলায় বিভিন্ন মেয়াদে সাজাপ্রাপ্ত দীর্ঘদিন ধরে পলাতক আসামি।

র‍্যাব-৩ এর স্টাফ অফিসার (মিডিয়া) সহকারী পুলিশ সুপার মো. আজাহার হোসেন জানান, গ্রেপ্তার ফখরুল ২০১১ সালে মেঘনা মাল্টিপারপাস লিমিটেড নামে একটি সমবায় সমিতি প্রতিষ্ঠা করে। ২০১৩ সালে সমবায় সমিতির গ্রাহক সংখ্যা চার শতাধিক ছাড়িয়ে গেলে গ্রেপ্তার আসামি গ্রাহকদের জমা করা কোটি কোটি টাকা নিয়ে লাপাত্তা হয়ে যায়।

পরে তার বিরুদ্ধে অর্থ আদালত আইন এবং সমবায় সমিতি আইনে চেক জালিয়াতিসহ প্রতারণার অভিযোগে মোট ৭টি মামলা দায়ের করা হয়। বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে আদালত গ্রেপ্তার আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড ও অর্থদণ্ড দেন।

সমবায় সমিতি আইনে দায়ের করা ২০১৪ সালের একটি মামলায় চাঁদপুর যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ ১ম আদালত ২০২০ সালে গ্রেপ্তার ফখরুলকে ৭ বছরের কারাদণ্ড এবং ৬ লাখ ৬৬ হাজার ৬৬৬ টাকা অর্থদণ্ড দেন।

এএসপি আজাহার বলেন, গ্রাহকদের টাকা লুট করার পর থেকেই নিজ এলাকা ছেড়ে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় পলাতক জীবনযাপন করে আসছিল। সে নিজের প্রকৃত নাম পরিচয় গোপন করে ছদ্মনাম ব্যবহার করে রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকায় অবস্থানের সময় বুধবার র‍্যাব-৩ তাকে গ্রেপ্তার করে। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।