ঢাকা ০৩:২১ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শ্রীমঙ্গলে সাজানো মামলা দিয়ে ভাই-ভাতিজাদের হয়রানী

Reporter Name
  • Update Time : ০৫:০২:৩৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ মে ২০২৩
  • / ৮৬৮ Time View

শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স জামে মসজিদের ইমাম মোঃ আজগর হোসেন

মশাহিদ আহমদ, মৌলভীবাজার: শ্রীমঙ্গল উপজেলার ৬নং আশিদ্রোন ইউনিয়নের শংকরসোনা গ্রামে ঘরে আগুন দিয়ে পুড়ানোসহ একাধিক সাজানো মামলা দিয়ে আপন ভাই-ভাতিজাদের হয়রানী করার অভিযোগ উঠেছে শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স জামে মসজিদের ইমাম মোঃ আজগর হোসেন (৪৫) এর বিরুদ্ধে।

সর্বশেষ তিনি বাদী হয়ে ঘরে আগুন দেয়ার অভিযোগ তুলে আপন বড় ভাই মোঃ মোছাহির হোসেন ওরফে মস্তরী(৬৫), মোঃ আকবর আলী (৬২), ভাতিজা শরীফ মিয়া (২৭) ও আনোয়ার হোসেন (৩০)-কে আসামী করে মৌলভীবাজার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে মামলা দায়ের করেছেন।

বিজ্ঞ আদালতের নির্দেশে মামলাটি মৌলভীবাজার পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) তদন্ত করছে। বিজ্ঞ আদালতে দায়েরকৃত ২টি মামলার দায় হইতে ভুক্তভোগীদের খালাস দিয়েছেন এবং বর্তমানে আদালতে দায়েরকৃত মামলার সত্যতা কি এ সব বিষয়ে সরেজমিন গিয়ে তাকে না  পেয়ে মুঠোফোনে জানতে চাইলে শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স জামে মসজিদের ইমাম মোঃ আজগর হোসেন এ প্রতিনিধিকে জানান- আমার কাছে প্রমান আছে। এখন এসব বিষয়ে বলতে পারবো না।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে প্রতিবেশী মোঃ তাজুল ইসলাম, মোঃ জামাল মিয়া, ফুল মিয়া, অপর ধর্মালম্বী প্রতিবেশী সুমিত্রা, সন্ধ্যা, জাদুসহ একাধিক প্রতিবেশী জানান- মাও ঃ আজগর হোসেন এর ঘরে আগুন লাগলে আমরা প্রতিবেশী হিসাবে দেখার- জানার এবং শুনার কথা। আগুন না লাগলে আমরা শুনবো কোথায় থেকে। এসব মিথ্যা। মাওঃ মোঃ আজগর হোসেন এর সাথে মূল বিরোধ স্থানীয় একটি মাদরাসা‘র আর্থিক লন-দেন এর অনিয়ম ও দুর্ণীতি নিয়ে। তাদের মধ্যে পারিবারিক বিরোধ ও চলমান।

ভুক্তভোগী মোঃ মোছাহির হোসেন, মোঃআকবর আলী, আনোয়ার হোসেন গংরা জানান- শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্র জামে মসজিদের ইমাম মোঃ আজগর হোসেন প্রতিশোধ পরায়ন হয়ে একাধিক মিথ্যা মামলা দায়ের করে আসছেন।

দায়েরকৃত অভিযোগ মিথ্যা প্রমানিত হওয়ায় বিজ্ঞ আদালত (পিটিশন মামলা নং- ১৮৪/২০২২ইং(শ্রীঃ) ও নন জিআর-৫৩/২০২২ইং (শ্রীমঙ্গল) হইতে খালাস প্রদান করেন।৯নং ওয়ার্ড মেম্বার মোঃ জয়নাল আবেদীন বলেন- ঘরে আগুন লাগানোর বিষয়টি জানা নেই।

তাছাড়া, মাও ঃ মোঃ আজগর হোসেন এলাকার মেম্বার, চেয়ারম্যান ও গন্যমান্য লোকজনদের অবহেলা করে চলেন। বিজ্ঞ আদালতে দায়েরকৃত ২টি মামলার দায় হইতে ভুক্তভোগীদের খালাস দিয়েছেন।

এ ব্যপারে জানতে চাইলে ৬নং আশিদ্রোন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রনেন্দ্র প্রসাদ বর্ধন (জহর) বলেন- পারিবারিক বিরোধ চলমান।

মাও ঃ মোঃ আজগর হোসেন উপজেলা চেয়ারম্যানসহ গন্যমান্য ব্যক্তিদের কথা শুনতে রাজি নয়। তিনি কথায় কথায় একজন প্রভাবশালী ব্যক্তি‘র নাম ব্যবহার করছেন।

Please Share This Post in Your Social Media

শ্রীমঙ্গলে সাজানো মামলা দিয়ে ভাই-ভাতিজাদের হয়রানী

Update Time : ০৫:০২:৩৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ মে ২০২৩

মশাহিদ আহমদ, মৌলভীবাজার: শ্রীমঙ্গল উপজেলার ৬নং আশিদ্রোন ইউনিয়নের শংকরসোনা গ্রামে ঘরে আগুন দিয়ে পুড়ানোসহ একাধিক সাজানো মামলা দিয়ে আপন ভাই-ভাতিজাদের হয়রানী করার অভিযোগ উঠেছে শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স জামে মসজিদের ইমাম মোঃ আজগর হোসেন (৪৫) এর বিরুদ্ধে।

সর্বশেষ তিনি বাদী হয়ে ঘরে আগুন দেয়ার অভিযোগ তুলে আপন বড় ভাই মোঃ মোছাহির হোসেন ওরফে মস্তরী(৬৫), মোঃ আকবর আলী (৬২), ভাতিজা শরীফ মিয়া (২৭) ও আনোয়ার হোসেন (৩০)-কে আসামী করে মৌলভীবাজার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে মামলা দায়ের করেছেন।

বিজ্ঞ আদালতের নির্দেশে মামলাটি মৌলভীবাজার পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) তদন্ত করছে। বিজ্ঞ আদালতে দায়েরকৃত ২টি মামলার দায় হইতে ভুক্তভোগীদের খালাস দিয়েছেন এবং বর্তমানে আদালতে দায়েরকৃত মামলার সত্যতা কি এ সব বিষয়ে সরেজমিন গিয়ে তাকে না  পেয়ে মুঠোফোনে জানতে চাইলে শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স জামে মসজিদের ইমাম মোঃ আজগর হোসেন এ প্রতিনিধিকে জানান- আমার কাছে প্রমান আছে। এখন এসব বিষয়ে বলতে পারবো না।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে প্রতিবেশী মোঃ তাজুল ইসলাম, মোঃ জামাল মিয়া, ফুল মিয়া, অপর ধর্মালম্বী প্রতিবেশী সুমিত্রা, সন্ধ্যা, জাদুসহ একাধিক প্রতিবেশী জানান- মাও ঃ আজগর হোসেন এর ঘরে আগুন লাগলে আমরা প্রতিবেশী হিসাবে দেখার- জানার এবং শুনার কথা। আগুন না লাগলে আমরা শুনবো কোথায় থেকে। এসব মিথ্যা। মাওঃ মোঃ আজগর হোসেন এর সাথে মূল বিরোধ স্থানীয় একটি মাদরাসা‘র আর্থিক লন-দেন এর অনিয়ম ও দুর্ণীতি নিয়ে। তাদের মধ্যে পারিবারিক বিরোধ ও চলমান।

ভুক্তভোগী মোঃ মোছাহির হোসেন, মোঃআকবর আলী, আনোয়ার হোসেন গংরা জানান- শ্রীমঙ্গল উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্র জামে মসজিদের ইমাম মোঃ আজগর হোসেন প্রতিশোধ পরায়ন হয়ে একাধিক মিথ্যা মামলা দায়ের করে আসছেন।

দায়েরকৃত অভিযোগ মিথ্যা প্রমানিত হওয়ায় বিজ্ঞ আদালত (পিটিশন মামলা নং- ১৮৪/২০২২ইং(শ্রীঃ) ও নন জিআর-৫৩/২০২২ইং (শ্রীমঙ্গল) হইতে খালাস প্রদান করেন।৯নং ওয়ার্ড মেম্বার মোঃ জয়নাল আবেদীন বলেন- ঘরে আগুন লাগানোর বিষয়টি জানা নেই।

তাছাড়া, মাও ঃ মোঃ আজগর হোসেন এলাকার মেম্বার, চেয়ারম্যান ও গন্যমান্য লোকজনদের অবহেলা করে চলেন। বিজ্ঞ আদালতে দায়েরকৃত ২টি মামলার দায় হইতে ভুক্তভোগীদের খালাস দিয়েছেন।

এ ব্যপারে জানতে চাইলে ৬নং আশিদ্রোন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রনেন্দ্র প্রসাদ বর্ধন (জহর) বলেন- পারিবারিক বিরোধ চলমান।

মাও ঃ মোঃ আজগর হোসেন উপজেলা চেয়ারম্যানসহ গন্যমান্য ব্যক্তিদের কথা শুনতে রাজি নয়। তিনি কথায় কথায় একজন প্রভাবশালী ব্যক্তি‘র নাম ব্যবহার করছেন।