ঢাকা ০৬:২৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের রাস্তা বন্ধ করে মার্কেট নির্মাণের প্রতিবাদে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ,অবরোধ

গাজীপুর প্রতিনিধি
  • Update Time : ০৪:১৬:১৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৬ মার্চ ২০২৪
  • / ৩৫ Time View

গাজীপুর সদর উপজেলার ভাওয়াল মির্জাপুর হাজী জমির উদ্দিন স্কুল এন্ড কলেজে প্রবেশের রাস্তা বন্ধ করে মার্কেট নির্মাণ করার প্রতিবাদে শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করছে। এসময় তাদের সঙ্গে অবিভাবক ও শিক্ষকরা একাগ্রতা প্রকাশ করে আন্দোলনে যোগ দেন৷

শনিবার ( ১৬ মার্চ) সকালে ১১ টার দিকে ওই কলেজের কয়েক হাজার শিক্ষার্থী মিছিল নিয়ে ভাওয়াল মির্জাপুর বাজারের চার রাস্তায় এসে বিক্ষোভ শুরু করে। একপর্যায়ে তারা আঞ্চলিক সড়ক অবরোধ করে, এতে দীর্ঘ সময় ওই সড়কে যানচলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও স্থানীয়রা জানান, ভাওয়াল মির্জাপুর হাজী জমির উদ্দিন স্কুল এন্ড কলেজে প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯৫৫ সালে। বর্তমান এখানে দুই হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী পড়াশোনা করেন৷ মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক এই প্রতিষ্ঠানের সভাপতি।

এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে প্রবেশের দুটি রাস্তা থাকলেও পূর্ব দিকের রাস্তাটি বেশি কার্যকর। স্কুল প্রতিষ্ঠার পর তৎকালীন মন্ত্রী স্থানীয়দের থেকে জমি নিয়ে রাস্তাটি করে দেন৷ তবে জমিদাতা মুরুব্বিরা গত হলে কয়েকবছর ধরে বিদ্যালয়ের রাস্তাটি দখলের পায়তারা শুরু করে তাদের ওয়ারিশরা।

বিদ্যালয়ের প্রধান রাস্তাটি দখল করে পাইলিং করে মার্কেট নির্মাণ করছেন মির্জাপুর এলাকার বাসিন্দা ব্যবাসায়ী সাইফুল ইসলাম নাঠু। তাকে সবাই নাঠু মুসুল্লি বলেই চিনে। কয়েক দফায় স্থানীয় লোকজন, কলেজ কতৃপক্ষসহ অনেকেই তাকে বোঝানোর চেষ্টা করলেও শোনেননি৷ শিক্ষার্থীরা বলছে মার্কেট নির্মাণ বন্ধ করতে হবে এবং আমাদের চলাচলের রাস্তা ঠিক রাখতে হবে। না হলে সামনে আরও কঠোর আন্দোলন করা হবে।

এবিষয়ে জানতে ওই মার্কেট মালিক সাইফুল ইসলাম নাঠুর ব্যক্তিগত নম্বরে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তিনি সারা দেননি।

কলেজের অধ্যক্ষ সনোয়ার হোসেন বলেন, ১৯৫৫ সালে আমাদের প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। দুই হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী বর্তমানে আমার প্রতিষ্ঠানে। প্রতিষ্ঠানে প্রবেশের মূল রাস্তাটি কেটে স্থানীয় নাঠু মুসুল্লি মার্কেট নির্মাণ করছেন। আমরা প্রশাসনকে জানিয়েছি, দায়িত্বশীলদের মাধ্যমেও তাকে বুঝানোর চেষ্টা করেছি কিন্তু সে শোনেননি। এজন্য শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নামতে বাধ্য হয়েছে। আমরা শিক্ষার্থীর সঙ্গে একাগ্রতা প্রকাশ করে বলতে চাই দ্রুত স্কুলের রাস্তা থেকে মার্কেট নির্মাণ বন্ধ করা হোক।

Please Share This Post in Your Social Media

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের রাস্তা বন্ধ করে মার্কেট নির্মাণের প্রতিবাদে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ,অবরোধ

Update Time : ০৪:১৬:১৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৬ মার্চ ২০২৪

গাজীপুর সদর উপজেলার ভাওয়াল মির্জাপুর হাজী জমির উদ্দিন স্কুল এন্ড কলেজে প্রবেশের রাস্তা বন্ধ করে মার্কেট নির্মাণ করার প্রতিবাদে শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করছে। এসময় তাদের সঙ্গে অবিভাবক ও শিক্ষকরা একাগ্রতা প্রকাশ করে আন্দোলনে যোগ দেন৷

শনিবার ( ১৬ মার্চ) সকালে ১১ টার দিকে ওই কলেজের কয়েক হাজার শিক্ষার্থী মিছিল নিয়ে ভাওয়াল মির্জাপুর বাজারের চার রাস্তায় এসে বিক্ষোভ শুরু করে। একপর্যায়ে তারা আঞ্চলিক সড়ক অবরোধ করে, এতে দীর্ঘ সময় ওই সড়কে যানচলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও স্থানীয়রা জানান, ভাওয়াল মির্জাপুর হাজী জমির উদ্দিন স্কুল এন্ড কলেজে প্রতিষ্ঠিত হয় ১৯৫৫ সালে। বর্তমান এখানে দুই হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী পড়াশোনা করেন৷ মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক এই প্রতিষ্ঠানের সভাপতি।

এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে প্রবেশের দুটি রাস্তা থাকলেও পূর্ব দিকের রাস্তাটি বেশি কার্যকর। স্কুল প্রতিষ্ঠার পর তৎকালীন মন্ত্রী স্থানীয়দের থেকে জমি নিয়ে রাস্তাটি করে দেন৷ তবে জমিদাতা মুরুব্বিরা গত হলে কয়েকবছর ধরে বিদ্যালয়ের রাস্তাটি দখলের পায়তারা শুরু করে তাদের ওয়ারিশরা।

বিদ্যালয়ের প্রধান রাস্তাটি দখল করে পাইলিং করে মার্কেট নির্মাণ করছেন মির্জাপুর এলাকার বাসিন্দা ব্যবাসায়ী সাইফুল ইসলাম নাঠু। তাকে সবাই নাঠু মুসুল্লি বলেই চিনে। কয়েক দফায় স্থানীয় লোকজন, কলেজ কতৃপক্ষসহ অনেকেই তাকে বোঝানোর চেষ্টা করলেও শোনেননি৷ শিক্ষার্থীরা বলছে মার্কেট নির্মাণ বন্ধ করতে হবে এবং আমাদের চলাচলের রাস্তা ঠিক রাখতে হবে। না হলে সামনে আরও কঠোর আন্দোলন করা হবে।

এবিষয়ে জানতে ওই মার্কেট মালিক সাইফুল ইসলাম নাঠুর ব্যক্তিগত নম্বরে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তিনি সারা দেননি।

কলেজের অধ্যক্ষ সনোয়ার হোসেন বলেন, ১৯৫৫ সালে আমাদের প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। দুই হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী বর্তমানে আমার প্রতিষ্ঠানে। প্রতিষ্ঠানে প্রবেশের মূল রাস্তাটি কেটে স্থানীয় নাঠু মুসুল্লি মার্কেট নির্মাণ করছেন। আমরা প্রশাসনকে জানিয়েছি, দায়িত্বশীলদের মাধ্যমেও তাকে বুঝানোর চেষ্টা করেছি কিন্তু সে শোনেননি। এজন্য শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নামতে বাধ্য হয়েছে। আমরা শিক্ষার্থীর সঙ্গে একাগ্রতা প্রকাশ করে বলতে চাই দ্রুত স্কুলের রাস্তা থেকে মার্কেট নির্মাণ বন্ধ করা হোক।