ঢাকা ০৩:৩৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রংপুরে পুকুরে মাছ ধরতে গিয়ে যুবকের মৃত্যু

Reporter Name
  • Update Time : ০৪:৩৮:৫৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১ মে ২০২৩
  • / ১৩৪ Time View

কামরুল হাসান টিটু,রংপুর: রংপুর মহানগরীর সাতমাথায় একটি পুকুর থেকে ফাহিম নামের এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস। পুকুরে মাছ ধরতে গিয়ে তলিয়ে তিনি মারা যান বলে জানিয়েছে পুলিশ। সোমবার ( ১ মে) বেলা ৩ টায় তার লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

রংপুর মেট্রোপলিটন মাহিগঞ্জ থানার ওসি মোস্তাফিজার রহমান জানান, সোমবার বেলা ১ টায় মাহিগঞ্জ চায়না হলের পাশে ওমর আলী পাম্পের উত্তর পাশে শফিউল্লাহ মিয়া পুকুরে মরা মাছ ভেসে উঠতে দেখে তা ধরতে নামেন স্থানীয় ফাহিম (৪০) নামের এক যুবক ও তার ভাগনা আল আমিন।

এরমধ্যে পুকুরের কিনারে মাছ ধরতে নেমে ফাহিম নিজ দেহের ভারসাম্য হারিয়ে পুকুরে পরে ডুবে যায়। সাতার না জানায় সে আর উপরে উঠতে পারেন নি। এসময় তার ভাগিনা আল আমিনের চিৎকারে সেখানে ছুটে যান এলাকাবাসি। তারা তাকে উদ্ধারের চেস্টা চালান। ঘন্টাখানেক পর তার লাশ ভেসে উঠে।

ওসি আরও জানান, স্থানীয়ভাবে খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দলের সহযোগিতায় তার লাশ উদ্ধার করা হয়। তিনি জানিয়েছেন পরিবারকে খবর দিয়েছি। তারা আসার পর লাশের বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হবে।

ফাহিম বিয়ে করে ওই এলাকায় দেড় বছর থেকে ভাড়া বাসায় থাকতেন। তার বাড়ি নগরীর স্টেশন এলাকায় তিনি এক কন্যা সন্তানের জনক বলে জানিয়েছে পুলিশ।

Please Share This Post in Your Social Media

রংপুরে পুকুরে মাছ ধরতে গিয়ে যুবকের মৃত্যু

Update Time : ০৪:৩৮:৫৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ১ মে ২০২৩

কামরুল হাসান টিটু,রংপুর: রংপুর মহানগরীর সাতমাথায় একটি পুকুর থেকে ফাহিম নামের এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস। পুকুরে মাছ ধরতে গিয়ে তলিয়ে তিনি মারা যান বলে জানিয়েছে পুলিশ। সোমবার ( ১ মে) বেলা ৩ টায় তার লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়।

রংপুর মেট্রোপলিটন মাহিগঞ্জ থানার ওসি মোস্তাফিজার রহমান জানান, সোমবার বেলা ১ টায় মাহিগঞ্জ চায়না হলের পাশে ওমর আলী পাম্পের উত্তর পাশে শফিউল্লাহ মিয়া পুকুরে মরা মাছ ভেসে উঠতে দেখে তা ধরতে নামেন স্থানীয় ফাহিম (৪০) নামের এক যুবক ও তার ভাগনা আল আমিন।

এরমধ্যে পুকুরের কিনারে মাছ ধরতে নেমে ফাহিম নিজ দেহের ভারসাম্য হারিয়ে পুকুরে পরে ডুবে যায়। সাতার না জানায় সে আর উপরে উঠতে পারেন নি। এসময় তার ভাগিনা আল আমিনের চিৎকারে সেখানে ছুটে যান এলাকাবাসি। তারা তাকে উদ্ধারের চেস্টা চালান। ঘন্টাখানেক পর তার লাশ ভেসে উঠে।

ওসি আরও জানান, স্থানীয়ভাবে খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দলের সহযোগিতায় তার লাশ উদ্ধার করা হয়। তিনি জানিয়েছেন পরিবারকে খবর দিয়েছি। তারা আসার পর লাশের বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হবে।

ফাহিম বিয়ে করে ওই এলাকায় দেড় বছর থেকে ভাড়া বাসায় থাকতেন। তার বাড়ি নগরীর স্টেশন এলাকায় তিনি এক কন্যা সন্তানের জনক বলে জানিয়েছে পুলিশ।