ঢাকা ০১:০০ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ৮ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
কিশোরগঞ্জে ২০ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র দাখিল প্রেস কাউন্সিল সাংবাদিকতার মান উন্নয়নে কাজ করছেঃ সিলেটে বিচারপতি মো. নিজামুল হক গাইবান্ধায় তৈরি হচ্ছে পরিবেশবান্ধব কংক্রিটের ইট গাইবান্ধায় মামলা প্রত্যাহার ও পুলিশি হয়রানির প্রতিবাদে মানববন্ধন সিলেট প্রেসক্লাব নির্বাচনে সভাপতি ইকরামুল কবির, সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম ঝালকাঠিতে ট্রাকচাপায় ১৪ জন নিহতের ঘটনায় চালক-হেলপার কারাগারে সূর্যের প্রখরতা আর ভ্যাপসা গরমে জনজীবন অতিষ্ঠ বিএনপির লক্ষ্য একাত্তর মুছে সাত চল্লিশে ফিরে যাওয়া: শাহরিয়ার কবির  হানিমুনে যাওয়া হলো না নবদম্পতির, একই পরিবারের ৬ জন নিহত ঝালকাঠিতে ট্রাকচাপায় নিহত ১৪ জনের মরদেহ হস্তান্তর

রংপুরে অপহরণের মামলায় পুলিশ কনস্টেবল রিমান্ডে

Reporter Name
  • Update Time : ০৫:১৪:৪০ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩০ এপ্রিল ২০২৩
  • / ২২৮ Time View

কামরুল হাসান টিটু, রংপুর ব্যুরো: রংপুরের গঙ্গাচড়ায় হ্যান্ডকাপ পড়িয়ে যুবককে বাড়ি থেকে অপহরণ, মারপিট ও মুক্তিপণ দাবির অভিযোগে করা মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া পুলিশ কনস্টেবল মাসুদ রানার (২৪) একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত।

রোববার (৩০ এপ্রিল) দুপুরে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত-১ এর বিচারক এসএম শফিকুল ইসলাম সাগর মাসুদ রানার একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা গঙ্গাচড়া মডেল থানার এসআই খায়রুল বাশার ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন গঙ্গাচড়া মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দুলাল হোসেন।

এই প্রতিবেদককে ওসি দুলাল হোসেন বলেন, মাসুদ রানাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হলেও আদালত একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন। অপহরণ মামলায় অন্য পলাতক আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ১০ এপ্রিল রাত ১টায় গঙ্গাচড়া উপজেলার আলমবিদিতর ইউনিয়নের চওড়াপাড়া গ্রামের নুর ইসলাম আপাছের বাড়িতে ডিবি পুলিশ পরিচয়ে অজ্ঞাত ৭ জন যুবক ঢুকে তার ছেলে সোনা মিয়াকে মারপিট করে বাড়ি থেকে নিয়ে যায়। পরে সোনা মিয়ার প্রতিবেশী সুরুজ মিয়ার মাধ্যমে অপহরণকারীরা ৫ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। খবর পেয়ে ওই রাতেই পার্শ্ববর্তী নোহালী ইউনিয়নের একটি চাতাল থেকে সোনা মিয়াকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে পরিবারের সদস্যরা।

এ ঘটনায় অজ্ঞাত অপহরণকারীদের বিরুদ্ধে গঙ্গাচড়া থানায় অভিযোগ দায়ের করেন সোনা মিয়ার বাবা নুর ইসলাম। এরপর ১৭ এপ্রিল পঞ্চগড় পুলিশ লাইন্সে প্রেষণে কর্মরত পুলিশ কনস্টেবল মাসুদ রানাকে পঞ্চগড় থেকে গ্রেফতার করা হয়। মাসুদ রানা গঙ্গাচড়া উপজেলার আলমবিদিতর ইউনিয়নের পশ্চিম মনিরাম এলাকার আব্দুল ওয়াহেদ মিয়ার ছেলে।

 

 

Please Share This Post in Your Social Media

রংপুরে অপহরণের মামলায় পুলিশ কনস্টেবল রিমান্ডে

Update Time : ০৫:১৪:৪০ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩০ এপ্রিল ২০২৩

কামরুল হাসান টিটু, রংপুর ব্যুরো: রংপুরের গঙ্গাচড়ায় হ্যান্ডকাপ পড়িয়ে যুবককে বাড়ি থেকে অপহরণ, মারপিট ও মুক্তিপণ দাবির অভিযোগে করা মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া পুলিশ কনস্টেবল মাসুদ রানার (২৪) একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত।

রোববার (৩০ এপ্রিল) দুপুরে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত-১ এর বিচারক এসএম শফিকুল ইসলাম সাগর মাসুদ রানার একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা গঙ্গাচড়া মডেল থানার এসআই খায়রুল বাশার ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন গঙ্গাচড়া মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দুলাল হোসেন।

এই প্রতিবেদককে ওসি দুলাল হোসেন বলেন, মাসুদ রানাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হলেও আদালত একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন। অপহরণ মামলায় অন্য পলাতক আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ১০ এপ্রিল রাত ১টায় গঙ্গাচড়া উপজেলার আলমবিদিতর ইউনিয়নের চওড়াপাড়া গ্রামের নুর ইসলাম আপাছের বাড়িতে ডিবি পুলিশ পরিচয়ে অজ্ঞাত ৭ জন যুবক ঢুকে তার ছেলে সোনা মিয়াকে মারপিট করে বাড়ি থেকে নিয়ে যায়। পরে সোনা মিয়ার প্রতিবেশী সুরুজ মিয়ার মাধ্যমে অপহরণকারীরা ৫ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। খবর পেয়ে ওই রাতেই পার্শ্ববর্তী নোহালী ইউনিয়নের একটি চাতাল থেকে সোনা মিয়াকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে পরিবারের সদস্যরা।

এ ঘটনায় অজ্ঞাত অপহরণকারীদের বিরুদ্ধে গঙ্গাচড়া থানায় অভিযোগ দায়ের করেন সোনা মিয়ার বাবা নুর ইসলাম। এরপর ১৭ এপ্রিল পঞ্চগড় পুলিশ লাইন্সে প্রেষণে কর্মরত পুলিশ কনস্টেবল মাসুদ রানাকে পঞ্চগড় থেকে গ্রেফতার করা হয়। মাসুদ রানা গঙ্গাচড়া উপজেলার আলমবিদিতর ইউনিয়নের পশ্চিম মনিরাম এলাকার আব্দুল ওয়াহেদ মিয়ার ছেলে।