ঢাকা ০১:৪৩ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ছাত্রদল নেতার হাতে যুব মহিলা লীগ নেত্রী লাঞ্ছিত

জাহাঙ্গীর আকন্দ
  • Update Time : ০৭:২৭:০৫ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • / ৩৭৮ Time View

গাজীপুর টঙ্গীর পাগার এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে টঙ্গী পূর্ব থানা যুব মহিলা লীগের সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ইয়াসমিন আক্তারকে শারীরিক ভাবে লাঞ্ছিত করার অভিযোগ উঠেছে মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ সভাপতি সম্রাট শাহ ও তার ভাই সাগরের বিরুদ্ধে।

বৃহস্পতিবার রাতে পাগাড় ফকির মার্কেট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এঘটনায় টঙ্গী পূর্ব থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী ওই নারী নেত্রী।

অভিযুক্তরা হলেন, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ সভাপতি সম্রাট শাহ (৩৬) তার ছোট ভাই সাগর (২৬) ও তার চাচা খোকন (৪৫)। তারা সকলে পাগাড় এলাকার বাসিন্দা।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার রাতে পাগাড় ফকির মার্কেট এলাকায় নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অবস্থান করছিলেন ইয়াসমিন আক্তার। এসময় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে অভিযুক্ত সাগর ও তার বাবার সাথে বাকবিতন্ডা হয় তার।

একপর্যায়ে সাবেক ছাত্রদল নেতা সম্রাট ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ইয়াসমিনকে এলোপাতাড়ি মারধর করতে থাকেন। এসময় সম্রাটের ছোট ভাই ও তার চাচা সম্রাটের সাথে যোগ দিয়ে ইয়াসমিনকে মারধর করে গুরুতর আহত করেন এবং তার স্বর্নালঙ্কার ও টাকা পয়সা লুট করে নিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে টঙ্গীর শহীদ আহসান উল্লাহ মাষ্টার জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন।

এবিষয়ে টঙ্গী পূর্ব থানার উপ পরিদর্শক মনির হোসেন বলেন, এঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী নারী। তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

ছাত্রদল নেতার হাতে যুব মহিলা লীগ নেত্রী লাঞ্ছিত

Update Time : ০৭:২৭:০৫ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১ সেপ্টেম্বর ২০২৩

গাজীপুর টঙ্গীর পাগার এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে টঙ্গী পূর্ব থানা যুব মহিলা লীগের সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ইয়াসমিন আক্তারকে শারীরিক ভাবে লাঞ্ছিত করার অভিযোগ উঠেছে মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ সভাপতি সম্রাট শাহ ও তার ভাই সাগরের বিরুদ্ধে।

বৃহস্পতিবার রাতে পাগাড় ফকির মার্কেট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এঘটনায় টঙ্গী পূর্ব থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী ওই নারী নেত্রী।

অভিযুক্তরা হলেন, মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ সভাপতি সম্রাট শাহ (৩৬) তার ছোট ভাই সাগর (২৬) ও তার চাচা খোকন (৪৫)। তারা সকলে পাগাড় এলাকার বাসিন্দা।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার রাতে পাগাড় ফকির মার্কেট এলাকায় নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অবস্থান করছিলেন ইয়াসমিন আক্তার। এসময় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে অভিযুক্ত সাগর ও তার বাবার সাথে বাকবিতন্ডা হয় তার।

একপর্যায়ে সাবেক ছাত্রদল নেতা সম্রাট ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ইয়াসমিনকে এলোপাতাড়ি মারধর করতে থাকেন। এসময় সম্রাটের ছোট ভাই ও তার চাচা সম্রাটের সাথে যোগ দিয়ে ইয়াসমিনকে মারধর করে গুরুতর আহত করেন এবং তার স্বর্নালঙ্কার ও টাকা পয়সা লুট করে নিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে টঙ্গীর শহীদ আহসান উল্লাহ মাষ্টার জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন।

এবিষয়ে টঙ্গী পূর্ব থানার উপ পরিদর্শক মনির হোসেন বলেন, এঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী নারী। তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।