ঢাকা ০৫:১১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গোবিন্দগঞ্জে স্বর্ণাংলকার হাতিয়ে নেওয়া জিনের বাদশা চক্রের সদস্য সাদ্দাম গ্রেফতার

Reporter Name
  • Update Time : ০৬:৩২:২৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১১ মে ২০২৩
  • / ১০১ Time View

আঃ খালেক মন্ডল, গোবিন্দগঞ্জ (গাইবান্ধা): গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় এক জিনের বাদশা চক্রের সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

ওই জিনের বাদশা চক্রের সদস্য সাদ্দাম আলী (২৯) আকলিমা বেগম (৩৩) নামের এক নারীকে গুপ্তধন পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে ১ লাখ ৮০ হাজার টাকা ও ২ ভরি স্বর্ণালংকার হাতিয়ে নেন।

বৃহস্পতিবার (১২ মে) দুপুরে গাইবান্ধা পুলিশ সুপার কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ের মাধ্যমে এসব তথ্য জানান পুলিশ সুপার কামাল হোসেন।

গ্রেফতার সাদ্দাম আলী গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার বগুলাগাড়ী গ্রামের মুক্তার হোসেনের ছেলে।

পুলিশ সুপার কামাল হোসেন জানান, গত (৮ এপ্রিল) সুন্দরগঞ্জ উপজেলার ছাপরহাটি ইউনিয়নের মরুয়াদহ (সোনালের পাড়া) গ্রামের আকলিমা বেগমকে ওই চক্রটি মোবাইল ফোনে কিছু গায়েবি কথা শোনান। তাকে গুপ্তধন পাইয়ে দেওয়ার কথা বলা হয়। এই প্রলোভন দেখিয়ে আকলিমার কাছে বিভিন্ন সময়ে ১ লাখ ৮০ হাজার টাকা ও একটি স্বর্ণের চেইন এবং দুই জোড়া হাতের বালাসহ মোট ২ ভরি স্বর্ণালংকার হাতিয়ে নেওয়া হয়। এই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে পুলিশের একটি দল তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে সাদ্দাম আলীকে শনাক্ত করেন।

এরই একপর্যায়ে বুধবার (১১ মে) রাতে পুলিশ অভিযান পরিচালনা করে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার দরবস্ত ইউনিয়নের গোবিন্দপুর নলডাঙ্গা এলাকার চরাঞ্চল থেকে সাদ্দাম আলীকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ সুপার আরও বলেন, ওই সাদ্দাম আলীকে গ্রেফতারসহ তার কাছ থেকে প্রতারণার আত্মসাৎ করা স্বর্ণালংকারে মধ্যে ২টি বালা ও স্বর্ণ বিক্রির ১২ হাজার টাকা, ৫টি মোবাইল ফোন, ১৯টি সিমকার্ড জব্দ করা হয়েছে। এ ঘটনায় সুন্দরগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

গোবিন্দগঞ্জে স্বর্ণাংলকার হাতিয়ে নেওয়া জিনের বাদশা চক্রের সদস্য সাদ্দাম গ্রেফতার

Update Time : ০৬:৩২:২৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১১ মে ২০২৩

আঃ খালেক মন্ডল, গোবিন্দগঞ্জ (গাইবান্ধা): গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় এক জিনের বাদশা চক্রের সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

ওই জিনের বাদশা চক্রের সদস্য সাদ্দাম আলী (২৯) আকলিমা বেগম (৩৩) নামের এক নারীকে গুপ্তধন পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে ১ লাখ ৮০ হাজার টাকা ও ২ ভরি স্বর্ণালংকার হাতিয়ে নেন।

বৃহস্পতিবার (১২ মে) দুপুরে গাইবান্ধা পুলিশ সুপার কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ের মাধ্যমে এসব তথ্য জানান পুলিশ সুপার কামাল হোসেন।

গ্রেফতার সাদ্দাম আলী গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার বগুলাগাড়ী গ্রামের মুক্তার হোসেনের ছেলে।

পুলিশ সুপার কামাল হোসেন জানান, গত (৮ এপ্রিল) সুন্দরগঞ্জ উপজেলার ছাপরহাটি ইউনিয়নের মরুয়াদহ (সোনালের পাড়া) গ্রামের আকলিমা বেগমকে ওই চক্রটি মোবাইল ফোনে কিছু গায়েবি কথা শোনান। তাকে গুপ্তধন পাইয়ে দেওয়ার কথা বলা হয়। এই প্রলোভন দেখিয়ে আকলিমার কাছে বিভিন্ন সময়ে ১ লাখ ৮০ হাজার টাকা ও একটি স্বর্ণের চেইন এবং দুই জোড়া হাতের বালাসহ মোট ২ ভরি স্বর্ণালংকার হাতিয়ে নেওয়া হয়। এই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে পুলিশের একটি দল তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে সাদ্দাম আলীকে শনাক্ত করেন।

এরই একপর্যায়ে বুধবার (১১ মে) রাতে পুলিশ অভিযান পরিচালনা করে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার দরবস্ত ইউনিয়নের গোবিন্দপুর নলডাঙ্গা এলাকার চরাঞ্চল থেকে সাদ্দাম আলীকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশ সুপার আরও বলেন, ওই সাদ্দাম আলীকে গ্রেফতারসহ তার কাছ থেকে প্রতারণার আত্মসাৎ করা স্বর্ণালংকারে মধ্যে ২টি বালা ও স্বর্ণ বিক্রির ১২ হাজার টাকা, ৫টি মোবাইল ফোন, ১৯টি সিমকার্ড জব্দ করা হয়েছে। এ ঘটনায় সুন্দরগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।