ঢাকা ০৫:০০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কিছু রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে দেখা করে একটি দল লাফালাফি শুরু করেছে: শেখ সেলিম

স্টাফ রিপোর্টার
  • Update Time : ১১:২৯:১৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৮ জুন ২০২৩
  • / ১০২ Time View

আওয়ামী লীগ দলীয় সংসদ সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম। ফাইল ছবি

বিএনপি–জামায়াত দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব নস্যাৎ করতে ষড়যন্ত্র করছে বলে অভিযোগ করেছেন ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম। তাঁর দাবি, কিছু রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে দেখা করে একটি দল লাফালাফি শুরু করেছে। দেশে নির্বাচন হবে সংবিধান অনুযায়ী। দেশে তত্ত্বাবধায়ক সরকার হবে না।

রোববার জাতীয় সংসদে ২০২৩–২৪ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় অংশ নিয়ে শেখ সেলিম এসব কথা বলেন।

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্করকে ধন্যবাদ জানিয়ে শেখ সেলিম বলেন, জয়শঙ্কর বলেছেন, কারও হস্তক্ষেপে বাংলাদেশের নির্বাচন প্রভাবিত হবে না। ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত চার্লস হুয়াইটলি বলেছেন, তাঁরা এখানে মধ্যস্থতা করতে আসেননি। তাঁরা চান নির্বাচন সুষ্ঠু হোক। রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত বলেছেন, বাংলাদেশের নির্বাচন কীভাবে হবে, তা দেশটির জনগণ ঠিক করবে।

শেখ সেলিম বলেন, যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা দেওয়ায় বিএনপি লাফালাফি করছে। তিনি দাবি করেন, যুক্তরাষ্ট্র অনেক আগে তারেক রহমানকে স্যাংশন দিয়েছে। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ পালিয়ে যায় না। বিএনপির অনেক নেতা বিদেশে পালিয়েছেন। তারেক রহমান বিদেশে পালিয়ে আছেন।

কোনো সিচুয়েশন (পরিস্থিতি) এলে খালেদা জিয়া হঠাৎ করে অসুস্থ হয়ে যান বলেও মন্তব্য করেন আওয়ামী লীগের এই সংসদ সদস্য। তিনি বলে, বিএনপি বলে তাঁকে (খালেদা জিয়া) বিদেশ নিয়ে যেতে হবে। সাজাপ্রাপ্ত আসামি বিদেশ যেতে পারেন না।

আলোচনায় অংশ নিয়ে বিএনপির সমালোচনা করেন ধানের শীষ প্রতীকে নির্বাচন করে বিজয়ী হওয়া গণফোরামের সংসদ সদস্য সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ।
বিএনপি ‘ব্যাসিক্যালি নো পার্টি’ বলেও মন্তব্য করেন সুলতান মোহাম্মদ মনসুর। তাঁর দাবি, দলটি একটি ক্লাবে রূপান্তরিত হয়েছে। সরকার যেটাই বলে, তারা সেটার সমালোচনা করে।

Please Share This Post in Your Social Media

কিছু রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে দেখা করে একটি দল লাফালাফি শুরু করেছে: শেখ সেলিম

Update Time : ১১:২৯:১৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৮ জুন ২০২৩

বিএনপি–জামায়াত দেশের স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব নস্যাৎ করতে ষড়যন্ত্র করছে বলে অভিযোগ করেছেন ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম। তাঁর দাবি, কিছু রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে দেখা করে একটি দল লাফালাফি শুরু করেছে। দেশে নির্বাচন হবে সংবিধান অনুযায়ী। দেশে তত্ত্বাবধায়ক সরকার হবে না।

রোববার জাতীয় সংসদে ২০২৩–২৪ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটের ওপর সাধারণ আলোচনায় অংশ নিয়ে শেখ সেলিম এসব কথা বলেন।

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্করকে ধন্যবাদ জানিয়ে শেখ সেলিম বলেন, জয়শঙ্কর বলেছেন, কারও হস্তক্ষেপে বাংলাদেশের নির্বাচন প্রভাবিত হবে না। ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত চার্লস হুয়াইটলি বলেছেন, তাঁরা এখানে মধ্যস্থতা করতে আসেননি। তাঁরা চান নির্বাচন সুষ্ঠু হোক। রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত বলেছেন, বাংলাদেশের নির্বাচন কীভাবে হবে, তা দেশটির জনগণ ঠিক করবে।

শেখ সেলিম বলেন, যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা দেওয়ায় বিএনপি লাফালাফি করছে। তিনি দাবি করেন, যুক্তরাষ্ট্র অনেক আগে তারেক রহমানকে স্যাংশন দিয়েছে। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ পালিয়ে যায় না। বিএনপির অনেক নেতা বিদেশে পালিয়েছেন। তারেক রহমান বিদেশে পালিয়ে আছেন।

কোনো সিচুয়েশন (পরিস্থিতি) এলে খালেদা জিয়া হঠাৎ করে অসুস্থ হয়ে যান বলেও মন্তব্য করেন আওয়ামী লীগের এই সংসদ সদস্য। তিনি বলে, বিএনপি বলে তাঁকে (খালেদা জিয়া) বিদেশ নিয়ে যেতে হবে। সাজাপ্রাপ্ত আসামি বিদেশ যেতে পারেন না।

আলোচনায় অংশ নিয়ে বিএনপির সমালোচনা করেন ধানের শীষ প্রতীকে নির্বাচন করে বিজয়ী হওয়া গণফোরামের সংসদ সদস্য সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ।
বিএনপি ‘ব্যাসিক্যালি নো পার্টি’ বলেও মন্তব্য করেন সুলতান মোহাম্মদ মনসুর। তাঁর দাবি, দলটি একটি ক্লাবে রূপান্তরিত হয়েছে। সরকার যেটাই বলে, তারা সেটার সমালোচনা করে।