ঢাকা ০৩:০৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ৮ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
কিশোরগঞ্জে ২০ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র দাখিল প্রেস কাউন্সিল সাংবাদিকতার মান উন্নয়নে কাজ করছেঃ সিলেটে বিচারপতি মো. নিজামুল হক গাইবান্ধায় তৈরি হচ্ছে পরিবেশবান্ধব কংক্রিটের ইট গাইবান্ধায় মামলা প্রত্যাহার ও পুলিশি হয়রানির প্রতিবাদে মানববন্ধন সিলেট প্রেসক্লাব নির্বাচনে সভাপতি ইকরামুল কবির, সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম ঝালকাঠিতে ট্রাকচাপায় ১৪ জন নিহতের ঘটনায় চালক-হেলপার কারাগারে সূর্যের প্রখরতা আর ভ্যাপসা গরমে জনজীবন অতিষ্ঠ বিএনপির লক্ষ্য একাত্তর মুছে সাত চল্লিশে ফিরে যাওয়া: শাহরিয়ার কবির  হানিমুনে যাওয়া হলো না নবদম্পতির, একই পরিবারের ৬ জন নিহত ঝালকাঠিতে ট্রাকচাপায় নিহত ১৪ জনের মরদেহ হস্তান্তর

ইসলামাবাদে ১৪৪ ধারা, বিক্ষোভের ডাক দিলো ইমরানের দল

Reporter Name
  • Update Time : ০৭:৫৭:২৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ মে ২০২৩
  • / ৫৫ Time View

পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে । এর পরপরই ইমরান খানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) তাৎক্ষণিকভাবে দেশজুড়ে প্রতিবাদ বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে ইসলামাবাদে ১৪৪ ধারা জারি করেছে পাকিস্তান পুলিশ। নিষিদ্ধ করা হয়েছে চারজনের বেশি জমায়েত।
মঙ্গলবার (৯ মে) ইসলামাবাদ হাইকোর্টের সামনে থেকে ইমরান খানকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার বিরুদ্ধে করা মামলার একটির শুনানিতে অংশ নিতে আদালতে যাচ্ছিলেন তিনি। এসময় আধা সামরিক বাহিনী পাক রেঞ্জার্স তাকে গ্রেপ্তার করে। একটি কালো রঙের গাড়িতে নিয়ে যান আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা।
ইমরান খান গ্রেপ্তারের পর পাকিস্তান তেহরিক–ই–ইনসাফের (পিটিআই) নেতারা দলীয় কর্মী–সমর্থকদের রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করার ডাক দিয়েছেন।
তবে গ্রেপ্তার করার পর ইমরানকে ইসলামাবাদ হাইকোর্টে রাখা হয়েছে নাকি অন্য কোথাও নেওয়া হয়েছে, তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। ইসলামাবাদ পুলিশের টুইটার পেজে জানানো হয়েছে, ‘আল–কাদির ট্রাস্ট মামলায় ইমরান খানকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।’
বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে এক প্রত্যক্ষদর্শী বলেন, আদালতের গেট দিয়ে ইমরান খান প্রবেশ করার পরপরই আধা সামরিক বাহিনীর কন্টিনজেন্ট এবং সশস্ত্র ব্যক্তিরা তার পিছু নেয়। সাজোয়া যান দিয়ে এ সময় গেট বন্ধ করে দেয়া হয়। দ্রুত ইমরানকে সেখান থেকে সরিয়ে নেয়া হয়।
এদিকে ইসলামাবাদ হাইকোর্টের সামনে বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। সেখানে জড়ো হয়েছেন পিটিআইয়ের কয়েক শ কর্মী–সমর্থক। সেখানে তাদের সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সংঘর্ষ শুরু হয়।

অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক সংকটে পাকিস্তানের সামগ্রিক পরিস্থিতি এখন অত্যন্ত নাজুক। ইমরান খান অপসারিত হওয়ার পর গঠিত জোট সরকারের অবস্থানও নড়বড়ে। আর ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর থেকে ইমরান খান আগাম নির্বাচন আয়োজনে সরকারের ওপর চাপ প্রয়োগ করে যাচ্ছেন। যদিও শাহবাজ শরিফ সরকার এখনো নিজ অবস্থানে অনড়।

Please Share This Post in Your Social Media

ইসলামাবাদে ১৪৪ ধারা, বিক্ষোভের ডাক দিলো ইমরানের দল

Update Time : ০৭:৫৭:২৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ মে ২০২৩

পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে । এর পরপরই ইমরান খানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) তাৎক্ষণিকভাবে দেশজুড়ে প্রতিবাদ বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে ইসলামাবাদে ১৪৪ ধারা জারি করেছে পাকিস্তান পুলিশ। নিষিদ্ধ করা হয়েছে চারজনের বেশি জমায়েত।
মঙ্গলবার (৯ মে) ইসলামাবাদ হাইকোর্টের সামনে থেকে ইমরান খানকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার বিরুদ্ধে করা মামলার একটির শুনানিতে অংশ নিতে আদালতে যাচ্ছিলেন তিনি। এসময় আধা সামরিক বাহিনী পাক রেঞ্জার্স তাকে গ্রেপ্তার করে। একটি কালো রঙের গাড়িতে নিয়ে যান আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা।
ইমরান খান গ্রেপ্তারের পর পাকিস্তান তেহরিক–ই–ইনসাফের (পিটিআই) নেতারা দলীয় কর্মী–সমর্থকদের রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করার ডাক দিয়েছেন।
তবে গ্রেপ্তার করার পর ইমরানকে ইসলামাবাদ হাইকোর্টে রাখা হয়েছে নাকি অন্য কোথাও নেওয়া হয়েছে, তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। ইসলামাবাদ পুলিশের টুইটার পেজে জানানো হয়েছে, ‘আল–কাদির ট্রাস্ট মামলায় ইমরান খানকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।’
বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে এক প্রত্যক্ষদর্শী বলেন, আদালতের গেট দিয়ে ইমরান খান প্রবেশ করার পরপরই আধা সামরিক বাহিনীর কন্টিনজেন্ট এবং সশস্ত্র ব্যক্তিরা তার পিছু নেয়। সাজোয়া যান দিয়ে এ সময় গেট বন্ধ করে দেয়া হয়। দ্রুত ইমরানকে সেখান থেকে সরিয়ে নেয়া হয়।
এদিকে ইসলামাবাদ হাইকোর্টের সামনে বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। সেখানে জড়ো হয়েছেন পিটিআইয়ের কয়েক শ কর্মী–সমর্থক। সেখানে তাদের সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সংঘর্ষ শুরু হয়।

অর্থনৈতিক ও রাজনৈতিক সংকটে পাকিস্তানের সামগ্রিক পরিস্থিতি এখন অত্যন্ত নাজুক। ইমরান খান অপসারিত হওয়ার পর গঠিত জোট সরকারের অবস্থানও নড়বড়ে। আর ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর থেকে ইমরান খান আগাম নির্বাচন আয়োজনে সরকারের ওপর চাপ প্রয়োগ করে যাচ্ছেন। যদিও শাহবাজ শরিফ সরকার এখনো নিজ অবস্থানে অনড়।