ঢাকা ০৬:২৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ইসরাইলকে সতর্ক করল রাশিয়া

নওরোজ আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • Update Time : ০৯:৪৩:১৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ১ নভেম্বর ২০২৩
  • / ৯৫ Time View

রাশিয়া ও সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী। ছবি: সংগৃহীত

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ সিরিয়া এবং অন্যান্য প্রতিবেশী দেশগুলোতে ফিলিস্তিন-ইসরাইল সংঘাতের সম্ভাব্য বিস্তার সম্পর্কে কঠোরভাবে সতর্ক করেছেন। সিরিয়ায় সাম্প্রতিক ইসরাইলি বিমান হামলার বিষয়ে আলোচনার সময় উদ্বেগ প্রকাশ করেন ল্যাভরভ।

ইরানি বার্তা সংস্থা তাসনিম নিউজ এজেন্সি জানিয়েছে, মঙ্গলবার সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফয়সাল মেকদাদের সাথে ফোনালাপের সময় এই উদ্বেগ প্রকাশ করেন রুশ মন্ত্রী ল্যাভরভ।

এ সময় রাশিয়ার শীর্ষ কূটনীতিক জোর দিয়ে বলেন, মধ্যপ্রাচ্যের অন্যান্য দেশগুলিতে সংঘাত ছড়িয়ে পড়া ‘অগ্রহণযোগ্য’।

রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বর্তমান বিস্ফোরক পরিস্থিতিতে মধ্যপ্রাচ্যকে রাজনৈতিক হিসাব নিষ্পত্তির ক্ষেত্রে পরিণত করার জন্য বহিরাগত শক্তির প্রচেষ্টার ঝুঁকির দিকে ইঙ্গিত করেছেন দুই মন্ত্রী।

রুশ মন্ত্রণালয় আরও উল্লেখ করেছে যে, তারা (রুশ ও সিরীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী) গাজায় অবিলম্বে যুদ্ধবিরতির আহ্বান জানিয়েছেন। সেই সঙ্গে গাজায় উদ্ভূত মানবিক সমস্যার সমাধান এবং আন্তর্জাতিক আইনের ভিত্তিতে রাজনৈতিক ও কূটনৈতিক উপায়ে দীর্ঘমেয়াদী নিষ্পত্তির বিষয়ে আলোচনা করেছেন।

ফোনালাপে সাম্প্রতিক সময়ে সিরিয়ায় ইসরাইলি বিমান হামলার বিষয়টিও উঠে এসেছে।

সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেকদাদ গাজার পরিস্থিতি, বিভিন্ন দ্বিপাক্ষিক বিষয় এবং সিরিয়ার সংঘাত সমাধানের চলমান প্রচেষ্টার পাশাপাশি এসব বিষয়ে কথা বলেন।

গত মাসে ইসরাইল সিরিয়ায় একাধিক বিমান হামলা চালিয়েছে, যার ফলে আলেপ্পো এবং দামেস্কের বিমানবন্দর সাময়িকভাবে বন্ধ রাখতে হয়। জার্মানিতে নিযুক্ত ইসরাইলি রাষ্ট্রদূত এই হামলার একটির কথা স্বীকার করেছেন।

এর আগে ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু গত এক দশকে সিরিয়ায় ‘শত শত’ হামলার কথা উল্লেখ করেছেন। সিরিয়ার সার্বভৌমত্ব লঙ্ঘনের বিরুদ্ধে দামেস্কের বারবার প্রতিবাদ সত্ত্বেও পরিস্থিতির পরিবর্তন হয়নি।

ফোনালাপে ল্যাভরভ ও মেকদাদ উভয়েই গাজায় রক্তপাত বন্ধ করার এবং চলমান সংঘাত থেকে উদ্ভূত মানবিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা জরুরি প্রয়োজন বলে একমত হয়েছেন।

রাশিয়া গাজায় ইসরাইলের প্রতিক্রিয়াকে নিরপরাধ বেসামরিক লোকদের বিরুদ্ধে ‘সম্মিলিত শাস্তি’ বলে অভিহিত করেছে।

Please Share This Post in Your Social Media

ইসরাইলকে সতর্ক করল রাশিয়া

Update Time : ০৯:৪৩:১৮ অপরাহ্ন, বুধবার, ১ নভেম্বর ২০২৩

রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ সিরিয়া এবং অন্যান্য প্রতিবেশী দেশগুলোতে ফিলিস্তিন-ইসরাইল সংঘাতের সম্ভাব্য বিস্তার সম্পর্কে কঠোরভাবে সতর্ক করেছেন। সিরিয়ায় সাম্প্রতিক ইসরাইলি বিমান হামলার বিষয়ে আলোচনার সময় উদ্বেগ প্রকাশ করেন ল্যাভরভ।

ইরানি বার্তা সংস্থা তাসনিম নিউজ এজেন্সি জানিয়েছে, মঙ্গলবার সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ফয়সাল মেকদাদের সাথে ফোনালাপের সময় এই উদ্বেগ প্রকাশ করেন রুশ মন্ত্রী ল্যাভরভ।

এ সময় রাশিয়ার শীর্ষ কূটনীতিক জোর দিয়ে বলেন, মধ্যপ্রাচ্যের অন্যান্য দেশগুলিতে সংঘাত ছড়িয়ে পড়া ‘অগ্রহণযোগ্য’।

রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বর্তমান বিস্ফোরক পরিস্থিতিতে মধ্যপ্রাচ্যকে রাজনৈতিক হিসাব নিষ্পত্তির ক্ষেত্রে পরিণত করার জন্য বহিরাগত শক্তির প্রচেষ্টার ঝুঁকির দিকে ইঙ্গিত করেছেন দুই মন্ত্রী।

রুশ মন্ত্রণালয় আরও উল্লেখ করেছে যে, তারা (রুশ ও সিরীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী) গাজায় অবিলম্বে যুদ্ধবিরতির আহ্বান জানিয়েছেন। সেই সঙ্গে গাজায় উদ্ভূত মানবিক সমস্যার সমাধান এবং আন্তর্জাতিক আইনের ভিত্তিতে রাজনৈতিক ও কূটনৈতিক উপায়ে দীর্ঘমেয়াদী নিষ্পত্তির বিষয়ে আলোচনা করেছেন।

ফোনালাপে সাম্প্রতিক সময়ে সিরিয়ায় ইসরাইলি বিমান হামলার বিষয়টিও উঠে এসেছে।

সিরিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেকদাদ গাজার পরিস্থিতি, বিভিন্ন দ্বিপাক্ষিক বিষয় এবং সিরিয়ার সংঘাত সমাধানের চলমান প্রচেষ্টার পাশাপাশি এসব বিষয়ে কথা বলেন।

গত মাসে ইসরাইল সিরিয়ায় একাধিক বিমান হামলা চালিয়েছে, যার ফলে আলেপ্পো এবং দামেস্কের বিমানবন্দর সাময়িকভাবে বন্ধ রাখতে হয়। জার্মানিতে নিযুক্ত ইসরাইলি রাষ্ট্রদূত এই হামলার একটির কথা স্বীকার করেছেন।

এর আগে ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু গত এক দশকে সিরিয়ায় ‘শত শত’ হামলার কথা উল্লেখ করেছেন। সিরিয়ার সার্বভৌমত্ব লঙ্ঘনের বিরুদ্ধে দামেস্কের বারবার প্রতিবাদ সত্ত্বেও পরিস্থিতির পরিবর্তন হয়নি।

ফোনালাপে ল্যাভরভ ও মেকদাদ উভয়েই গাজায় রক্তপাত বন্ধ করার এবং চলমান সংঘাত থেকে উদ্ভূত মানবিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা জরুরি প্রয়োজন বলে একমত হয়েছেন।

রাশিয়া গাজায় ইসরাইলের প্রতিক্রিয়াকে নিরপরাধ বেসামরিক লোকদের বিরুদ্ধে ‘সম্মিলিত শাস্তি’ বলে অভিহিত করেছে।