ঢাকা ০৫:৩৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
বিমানবন্দর-টঙ্গী থেকে ধারালো অস্ত্রসহ ৮ ছিনতাইকারী গ্রেপ্তার কিশোরগঞ্জে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে স্কুলের উন্নয়ন খাতের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ সাংবাদিককে ৫ বছরের অভিজ্ঞতা ও গ্র্যাজুয়েট হতে হবে বেনজীরের আরও ১১৩ দলিলের সম্পদ ও গুলশানের ৪টি ফ্ল্যাট জব্দের আদেশ সুজানগরে গৃহবধূকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে কাউকে ছাড় দেব না : ইসি রাশেদা ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে একটি বাড়ি থেকে ১২ কোটি রুপির স্বর্ণ জব্দ সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে বৈধপথে রেমিট্যান্স প্রেরণের আহ্বান প্রবাসী কল্যাণ প্রতিমন্ত্রীর ঝালকাঠিতে রেমালের প্রভাবে নদীর পানি বেড়েছে ২১৭ নেতাকে বহিষ্কার করল বিএনপি

অফিস-আদালতে বকশিশ দেওয়া-নেওয়া নিষিদ্ধ

Reporter Name
  • Update Time : ০৮:৪১:৪০ অপরাহ্ন, বুধবার, ১০ মে ২০২৩
  • / ২০৮ Time View

অফিস-আদালতে নানা কারণে টিপস-বকশিশ চাওয়া বা নেওয়া এখন প্রায় নিয়মে পরিণত হয়েছে। এমনও হয়, টিপস-বকশিশ না দেওয়া পর্যন্ত কাজই হয় না।

সরকারি অফিস-আদালত, দপ্তরে এ যেন অলিখিত এক নিয়ম। আর এই বকশিশ-টিপস যারা চাচ্ছেন বা নিচ্ছেন, তারা বিষয়টাকে পেশায় পরিণত করেছেন। যে কারণে অনৈতিক এই টিপস-বকশিশ নিয়ে বেঞ্চ কর্মকর্তা, সহকারী বেঞ্চ কর্মকর্তা, জামাদার, এমএলএসএ, ড্রাইভার, গানম্যানসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সতর্ক করেছেন হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ।

আজ বুধবার বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি বিশ্বজিৎ দেবনাথের দ্বৈত বেঞ্চের আদালত কক্ষের দরজায় বিজ্ঞপ্তিটি লাগানো দেখা গেছে। বেঞ্চ কর্মকর্তা মো. সাইফুল্লাহ খানের স্বাক্ষরে গত ৭ মে এই বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ‘কার্যতালিকায় মামলা ওঠার আগে বা পরে, মামলার রায়, জামিন আদেশ বা অন্য যেকোনো আদেশ হওয়ার আগে বা পরে বা অন্য যেকোনো সময় অত্র কোর্টের বেঞ্চ অফিসার, সহকারী বেঞ্চ অফিসার, বিচারপতির ব্যক্তিগত কর্মকর্তা, কোর্টের জমাদার, কোর্ট বা চেম্বারের এমএলএসএস, মহোদয়ের (বিচারপতি) ড্রাইভার এবং গানম্যানসহ অত্র কোর্টের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট যেকোনো কর্মকর্তা-কর্মচারী বকশিশ বা টিপস নেওয়ার নামে কোনো প্রকার অর্থ, উপহারসামগ্রী, গাড়ি সেবা বা অন্যকোনো নামে কোনো ধরনের সুবিধা গ্রহণ বা নেওয়া দুর্নীতি বলে গণ্য হবে।’

‘বকশিশ নেওয়া বা দেওয়া নিষেধ’ শিরোনামের বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়েছে, ‘অত্র কোর্টের কোনো কর্মকর্তা-কর্মচারীকে এ ধরনের দুর্নীতির সঙ্গে জড়িত পাওয়া গেলে আইন ও বিধি অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অতএব বিজ্ঞ আইনজীবী, আইনজীবী সহকারী এবং অত্র কোর্টের সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে এ ধরনের কার্যকলাপ থেকে বিরত থাকার জন্য নির্দেশ প্রদান করা গেল।’ গত ৭ মে বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়।

Please Share This Post in Your Social Media

অফিস-আদালতে বকশিশ দেওয়া-নেওয়া নিষিদ্ধ

Update Time : ০৮:৪১:৪০ অপরাহ্ন, বুধবার, ১০ মে ২০২৩

অফিস-আদালতে নানা কারণে টিপস-বকশিশ চাওয়া বা নেওয়া এখন প্রায় নিয়মে পরিণত হয়েছে। এমনও হয়, টিপস-বকশিশ না দেওয়া পর্যন্ত কাজই হয় না।

সরকারি অফিস-আদালত, দপ্তরে এ যেন অলিখিত এক নিয়ম। আর এই বকশিশ-টিপস যারা চাচ্ছেন বা নিচ্ছেন, তারা বিষয়টাকে পেশায় পরিণত করেছেন। যে কারণে অনৈতিক এই টিপস-বকশিশ নিয়ে বেঞ্চ কর্মকর্তা, সহকারী বেঞ্চ কর্মকর্তা, জামাদার, এমএলএসএ, ড্রাইভার, গানম্যানসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সতর্ক করেছেন হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ।

আজ বুধবার বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি বিশ্বজিৎ দেবনাথের দ্বৈত বেঞ্চের আদালত কক্ষের দরজায় বিজ্ঞপ্তিটি লাগানো দেখা গেছে। বেঞ্চ কর্মকর্তা মো. সাইফুল্লাহ খানের স্বাক্ষরে গত ৭ মে এই বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ‘কার্যতালিকায় মামলা ওঠার আগে বা পরে, মামলার রায়, জামিন আদেশ বা অন্য যেকোনো আদেশ হওয়ার আগে বা পরে বা অন্য যেকোনো সময় অত্র কোর্টের বেঞ্চ অফিসার, সহকারী বেঞ্চ অফিসার, বিচারপতির ব্যক্তিগত কর্মকর্তা, কোর্টের জমাদার, কোর্ট বা চেম্বারের এমএলএসএস, মহোদয়ের (বিচারপতি) ড্রাইভার এবং গানম্যানসহ অত্র কোর্টের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট যেকোনো কর্মকর্তা-কর্মচারী বকশিশ বা টিপস নেওয়ার নামে কোনো প্রকার অর্থ, উপহারসামগ্রী, গাড়ি সেবা বা অন্যকোনো নামে কোনো ধরনের সুবিধা গ্রহণ বা নেওয়া দুর্নীতি বলে গণ্য হবে।’

‘বকশিশ নেওয়া বা দেওয়া নিষেধ’ শিরোনামের বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়েছে, ‘অত্র কোর্টের কোনো কর্মকর্তা-কর্মচারীকে এ ধরনের দুর্নীতির সঙ্গে জড়িত পাওয়া গেলে আইন ও বিধি অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। অতএব বিজ্ঞ আইনজীবী, আইনজীবী সহকারী এবং অত্র কোর্টের সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে এ ধরনের কার্যকলাপ থেকে বিরত থাকার জন্য নির্দেশ প্রদান করা গেল।’ গত ৭ মে বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়।